সানজিদা ইসলাম মিলা ||

অভিনয়ের পাশাপাশি রাজনীতির মঞ্চেও পদার্পণ করেন নাফিসা আলি। কিন্তু, ২০১৮ সালের শেষ দিকে জানা যায় তিনি ক্যানসারে আক্রান্ত— স্টেজ থ্রি ওভারিয়ান ও পেরিটোনিয়াল ক্যানসার।

এ যাবৎ মাত্র ১০টি বলিউডি ছবিতে তাঁকে দেখা গিয়েছে। তবে প্রথম ছবিতেই নজর কেড়েছিলেন ১৯৭৬ সালের ভারত সুন্দরী নাফিসা আলি। ১৯৭৯ সালের ‘জুনুন’ ছবিতে তাঁকে দেখা গিয়েছিল শশী কপূরের বিপরীতে।
নাফিসা আলির সৌন্দর্যে সেই সময় মাতোয়ারা হয়েছিল আবালবৃদ্ধবনিতা। কিন্তু ‘জুনুন’ ছবির পরে প্রায় ১৮ বছর সিলভার স্ক্রিন থেকে সরে থাকেন এই সুন্দরী অভিনেত্রী। ১৯৯৬ সালের ‘আতঙ্ক’ ছিল তাঁর কামব্যাক ছবি।
তার পরে অভিনয়ের পাশাপাশি রাজনীতির মঞ্চেও পদার্পণ করেন নাফিসা আলি। কিন্তু, ২০১৮ সালের শেষ দিকে জানা যায় তিনি ক্যানসারে আক্রান্ত— স্টেজ থ্রি ওভারিয়ান ও পেরিটোনিয়াল ক্যানসার।
গত নভেম্বরে নিজের ইনস্টাগ্রাম পেজে নাফিসা আলি পোস্ট করে জানিয়েছিলেন যে, ১ মার্চ তাঁর চতুর্থ কেমোথেরাপি হবে। প্রসঙ্গত, আজই তিনি আরও একটি ছবি পোস্ট করেন তাঁর অ্যাকাউন্টে। স্বামী ও জ্যেষ্ঠ কন্যার সঙ্গে সেই ছবিতে প্রায় সঙ্গে সঙ্গেই কমেন্টের জোয়ার বয়ে যায়।
প্রসঙ্গত, গত মাসের ৫ তারিখ ছিল নাফিসা আলি ও তাঁর স্বামী, অবসরপ্রাপ্ত কর্নেল আর এস সোধির ৩৯তম বিবাহবার্ষিকী ছিল। সেই দিনে পরিবারের সঙ্গে কাটানো বেশ কিছু ছবিও তিনি শেয়ার করেছিলেন ইনস্টাগ্রামে।