দ্বিতীয় বিয়েও ভেঙে যাচ্ছে সুনিধি চৌহানের।

প্রতিবেদক || মুজাহিদ হাসানঃ

বেশ কিছু দিন ধরেই শোনা যাচ্ছিল গায়িকা সুনিধি চৌহান এবং তাঁর স্বামী হিতেশ সোনিকের আট বছরের বিবাহিত জীবনে ফাটল ধরেছে। সুনিধির কয়েক মাস আগে গোয়া ট্রিপের পরেই নাকি সম্পর্ক তলানিতে এসে ঠেকে।

নায়িকার ঘনিষ্ঠ সূত্র থেকে জানা গিয়েছিল, মাঝে নাকি আলাদাও থাকতে শুরু করেছিলেন তাঁরা। বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমের তরফে এ ব্যাপারে সুনিধির সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলে তিনি ‘নো কমেন্টস’ বলে গোটা ঘটনাটি এড়িয়ে যাচ্ছিলেন, ফলে গসিপও জোড়াল হচ্ছিল।

সত্যিটা কী? সুনিধি এড়িয়ে গেলেও ‘বম্বে টাইমস’-এর পক্ষ থেকে হিতেশের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, “ এই সব গুঞ্জন একেবারেই ভিত্তিহীন। আমি এবং সুনিধি একই ছাদের নিচে লকডাউন কাটাচ্ছি। ঘরবাড়ি পরিষ্কার রাখতেই আমি এত ব্যস্ত ছিলাম যে এই সব মুখরোচক খবর পড়ার সময় পাইনি।”

হিতেশের সরস বক্তব্য, “আমার মনে হয় আমার ঘরবাড়ি পরিষ্কার করার নমুনা দেখে সুনিধি একেবারেই খুশি নয় আর সে কারণেই এই সব খবর ঘুরে বেড়াচ্ছে।“

তাহলে সুনিধি কেন এড়িয়ে গেলেন প্রশ্ন? হিতেশ বলেন, “এতটাই অপ্রাসঙ্গিক মনে হয়েছে ওর সে জন্যই বোধহয় চুপ থাকাই শ্রেয় মনে করেছে সুনিধি।“

পেশায় মিউজিসিয়ান হিতেশের সঙ্গে ২০১২ সালে গাঁটছড়া বাঁধেন সুনিধি। ২০১৮-এ তাঁদের সন্তানের জন্ম হয়। এর আগে মাত্র ১৮ বছর বয়সে পরিচালক ববি খানকে বিয়ে করেছিলেন সুনিধি। যদিও তাঁদের সেই বিয়ে মাত্র এক বছর টিকেছিল।