ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত করেছে ‘ন ডরাই’ সিনেমাটি

প্রতিবেদক|| সানজিদা ইসলাম মিলা:

বাংলাদেশের প্রথম সাফিং নিয়ে সিনেমা হলো ন ডরাই। এর সেন্সর বাতিল ও প্রদর্শনী বন্ধের আইনি নোটিশ দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী।
সিনেমার নায়িকার সঙ্গে হযরত আয়েশার নাম ব্যবহার করে অশ্লীল দৃশ্য ধারন করা হয়েছে যা মুসলমানদের ধর্মীয় মূল্যবোধে আঘাতের শামিল।
শুধু তাই না কমিক বই ও এনিমেটেড ভিডিও থেকে এই সিনেমাটি তৈরি করা খুবই আপত্তিকর। সস্তা বাজার পাওয়ার জন্য পরিচালক মুসলমানদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের চেষ্টা করেছেন।ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের ২৮ ধারা অনুযায়ী যা শাস্তিযোগ্য অপরাধ। চলচিএ সেন্সরবোর্ড সিনেমাটি প্রদর্শনের অনুমতি দিয়ে আইন লঙ্ঘন করেছে।

এছাড়া ‘ন ডরাই’ চলচিএ নিয়ে লিগাল নোটিশ পাঠানোর বিষয়ে হুজ্জাতুল ইসলাম বলেন, সিনেমায় এমন দৃশ্য আছে যেগুলো বাংলাদেশের ছবিতে এই প্রথম। সাহসি দৃশ্য হলেও পরিবারের সদস্যদের নিয়ে দেখা যাবে এমন নিশ্চয়তা দেওয়া যায় না।
ছবির পরিচালক তানিম রহমান অংশু জানিয়েছেন, এখনও নোটিশ পাননি। তিনি আরো বলেন, আমি নিজে এবং স্টার সিনেপ্লেক্স থেকে যতদূর জানি এধরনের কোনো নোটিশ পাইনি।