রহস্যময় নতুন এক ভাইরাসের কবলে চীন:হুমকিতে বিশ্ব স্বাস্থ্য

প্রতিবেদক:-মো:শরীফুল আলম সাকিব

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের ইউহান শহরের একটি সামুদ্রিক খাবারের বাজারে প্রথম ধরা পড়ে ভাইরাসটি।চিকিৎসা বিজ্ঞানীরা এ ভাইরাসের নাম দিয়েছেন ‘2019-nCoV-Corona (২০১৯-এনসিওভি-করোনা)’। এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ইতিমধ্যে বিভিন্ন স্থানে ৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘের স্বাস্থ্য বিষয়ক সংস্থা ডব্লিউ এইচ ও।
বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে নিয়ে ইতিমধ্যে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে চীন ভ্রমণ শেষে আসা দেশি-বিদেশি নাগরিকদের ক্ষেত্রে বিশেষ সতর্কতামূলক ব্যবস্থা নিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর।

এ ভাইরাসের আক্রমণে আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরের জ্বর অনুভূত হয়।অনেক সময় শ্বাসকষ্ট হয়। এরপর নিউমোনিয়া হয় বা হতে পারে। রোগটি ছোঁয়াচে। তবে নতুন এ চীনা ভাইরাস পশু-পাখি নাকি সামুদ্রিক মাছ থেকে সংক্রমিত হচ্ছে সেটি এখনও নিশ্চিত হওয়া সম্ভব হয়নি।

যেহেতু রোগটি সংক্রমিত হয়, তাই সবারই সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা উচিত। বিশেষ করে, হাঁচি-কাশির সময় রুমাল-টিস্যু-গামছা দিয়ে নাক-মুখ ঢেকে নেয়া উচিত । হাঁচি-কাশিরত ব্যক্তি থেকে নিরাপদ দূরত্বে অবস্থান করা উচিত । প্রয়োজনে মাস্ক ব্যবহার করা উচিত । বারবার দুই হাত সাবান-পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলা উচিত ।
সিঙ্গাপুর ও থাইল্যান্ডে যেসব নাগরিকের ‘২০১৯-এনসিওভি করোনা’ ভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে তারা প্রত্যেকেই চীনের ইউহান এলাকায় ভ্রমণ করেছেন- এমন প্রমাণ পাওয়া গেছে। এসব নাগরিক উহানের ঐ সি-ফুড বাজারে কেনাকাটা করতে যান এবং তারপরই আক্রান্ত হন। তবে ভাইরাসটি সি-ফুডের মাধ্যমে নাকি অন্য কোনো পশু-পাখির মাধ্যমে ছড়িয়েছে সেটি এখনও নিশ্চিত করা যায়নি। যদিও চীন সরকার ইতিমধ্যে ওই সামুদ্রিক বাজার বন্ধ ঘোষণা করেছে।